ভাঙা ডিসপ্লে সহ ফোন ব্যবহার করতে ভুলবেন না, না হলে হতে পারে বড় সমস্যা!

Prakash Gupta
2 Min Read

স্মার্টফোন ক্রমশ জনপ্রিয় হয়ে উঠছে। ভারতে স্মার্টফোন ব্যবহারকারীর সংখ্যা দ্রুত বৃদ্ধি পাচ্ছে। পরিসংখ্যান অনুসারে, 2021 সালে 1.2 বিলিয়ন মোবাইল ফোন ব্যবহারকারী ছিল। এর মধ্যে 75 কোটি স্মার্টফোন ব্যবহারকারী ছিল।

2026 সাল নাগাদ স্মার্টফোন ব্যবহারকারীর সংখ্যা এক বিলিয়নে পৌঁছাবে বলে আশা করা হচ্ছে। বর্তমানে, বিপুল সংখ্যক মানুষ স্মার্টফোন ব্যবহার করছে। এই স্মার্টফোনগুলো বোতামযুক্ত ফোনের চেয়ে বেশি ভঙ্গুর।
একটু পড়ে গেলেও তাদের পর্দা ভেঙ্গে যায়। লোকেরা ভাঙা স্ক্রিন সহ ফোন ব্যবহার করা বন্ধ করে না। যাইহোক, এটি আপনার স্বাস্থ্যের উপর বিরূপ প্রভাব ফেলতে পারে। আজ এই নিবন্ধে, আমরা আপনাকে একটি ভাঙা পর্দা সঙ্গে একটি স্মার্টফোন ব্যবহারের ঝুঁকি সম্পর্কে জানাব.

এটি একটি টুডে স্ক্রিন সহ একটি ফোন ব্যবহার করার ঝুঁকি

টাচ স্ক্রিন ঠিকমতো কাজ করে না।

অনেক সময় এমন হয় যে আমরা যখন ভাঙা বা ফাটলযুক্ত ডিসপ্লে যুক্ত স্মার্টফোন ব্যবহার করি তখন তার স্পর্শ সঠিকভাবে কাজ করে না। যার কারণে বারবার আঙুল দিয়ে ফোনে ক্লিক করতে হয়। যার কারনে আমরা যে কোন মেসেজ বা কোন কাজ করতে সময় নিয়ে থাকি।

ডিভাইসের নিরাপত্তা ঝুঁকিতে

আমরা যখন ক্র্যাক স্ক্রিনযুক্ত ফোন ব্যবহার করি, তখন তা দ্রুত ফোন নষ্ট হওয়ার ঝুঁকি বাড়ায়। কারণ ফোনের স্ক্রিনও ডিভাইসটির ভিতরের সুরক্ষার কাজ করে। ফোনের স্ক্রিন ভেঙ্গে গেলে তা ফোনের ভিতরে পানি বা কোনো তরল থাকার ঝুঁকি বাড়ায়, যা ফোন নষ্ট করে দিতে পারে।

ক্ষতিকারক বিকিরণের ঝুঁকি

আমরা যখন ভাঙা স্ক্রিনযুক্ত ফোন ব্যবহার করি, তখন ফোনের ক্ষতিকর বিকিরণের প্রভাব আমাদের শরীরে বেশি হওয়ার সম্ভাবনা থাকে। এটা আমাদের জন্য বিপজ্জনক হতে পারে।

চোখের উপর প্রভাব

যখন আমাদের ফোনের স্ক্রিন নষ্ট হয়ে যায় তখন কোন কিছু দেখতে বা কোন মেসেজ পড়ার জন্য আমাদের চোখের উপর বেশি জোর দিতে হয়। এটি আমাদের চোখের উপর খারাপ প্রভাব ফেলে।

AI মানুষের জন্য সময়! Paytm তার 10% কর্মী ছাঁটাই করেছে।
READ
Share This Article